আন্তর্জাতিক নদীকৃত্য দিবস পালনে চাটমোহরে আলোচনা সভা ও চিত্রাঙ্কন প্রতিযোগিতা

আজ ১৪ মার্চ রবিবার আন্তর্জাতিক নদীকৃত্য দিবস। নদীর প্রতি দায়বদ্ধতা মনে করিয়ে দিতে সকালে চাটমোহর পৌরসদরের মাস্টারপাড়ায় চিত্রগৃহ চাটমোহরে ‘বড়াল নদী দখল ও দূষণমুক্ত করে নদীর জীবন বাঁচান, বাংলাদেশ বাঁচান’ প্রতিপাদ্য নিয়ে এক আলোচনা সভা ও শিশুদের নদী বিষয়ক চিত্রাঙ্কন প্রতিযোগিতা অনুষ্ঠিত হয়।
বাংলাদেশ পরিবেশ আন্দোলন (বাপা), বড়াল রক্ষা আন্দোলন ও চিত্রগৃহ চাটমোহরের যৌথ উদ্যোগে এ আয়োজন করা হয়।
চাটমোহর হিন্দু বোদ্ধ খ্রিস্টান ঐক্য পরিষদের সভাপতি জয়দেব কুন্ডুর সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত আলোচনা সভায় প্রধান অতিথি হিসাবে বক্তব্য দেন চাটমোহর সার্কেলের সিনিয়র সহকারী পুলিশ সুপার সজীব শাহরীন।
বিশেষ অতিথি হিসাবে বক্তব্য দেন বড়াল রক্ষা আন্দোলনের আহবায়ক ডা. অঞ্জন ভট্টাচার্য, সদস্য সচিব এসএম মিজানুর রহমান, চাটমোহর প্রেসক্লাবের সভাপতি রকিবুর রহমান টুকুন, দৈনিক আমাদের বড়াল সম্পাদক হেলালুর রহমান জুয়েল, সাবেক মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান বেগম রোকেয়া আজাদ, এলডিও’র নির্বাহী পরিচালক নূরে আলম মঞ্জু, চলনবিল রক্ষা কমিটির জাতীয় পরিষদ সদস্য জাহাঙ্গীর আলম।
আলোচনা সভা সঞ্চালনা করেন চিত্রগৃহ চাটমোহরের ব্যবস্থাপনা পরিচালক জেমান আসাদ।
এর আগে চাটমোহরের শতাধিক শিক্ষার্থীদের নিয়ে নদী বিষয়ক এক  চিত্রাঙ্কন প্রতিযোগীতা অনুষ্ঠিত হয়। এ প্রতিযোগীতার সমন্বয় করেন চিত্রগৃহ চাটমোহরের শিল্প পরিচালক মানিক দাস।
পরে চিত্রাঙ্কন প্রতিযোগীতায় বিজয়ীদের মধ্যে অতিথিরা পুরষ্কার বিতরন করেন । ৫টি শ্রেণীতে ২০ জন সেরা আঁকিয়ে শিক্ষার্থীদের পুরষ্কৃত করা হয়।
এ অনুষ্ঠানে আরো উপস্থিত ছিলেন চাটমোহর ব্যবসায়ী সমিতির সাবেক সভাপতি সন্তোষ রায় চৌধুরী, অধ্যক্ষ আব্দুর রহিম কালু, চ্যানেল টুয়েন্টিফোরের জেলা প্রতিনিধি শাহীন রহমান, দৈনিক যুগান্তরের চাটমোহর প্রতিনিধি পবিত্র তালুকদার, সাংবাদিক সালাউদ্দিন ফিরোজ, ব্যবসায়ী রনি রায় শত শিক্ষার্থীদের অভিভাবকেরা।
এ আয়োজন সম্পর্কে আয়োজক বড়াল রক্ষা আন্দোলনের সদস্য সচিব এস এম মিজানুর রহমান বলেন- নদীর প্রতি দায়বদ্ধতা স্বরণ করে প্রতিবছর বড় পরিসরে এ আয়োজন করলেও এ করোনার সময়ে ছোট আকারে এ আয়োজন করতে হচ্ছে। তবে শতাধিক শিক্ষার্থীর এ আয়োজনে অংশগ্রহন নদীর প্রতি দায়বদ্ধতার নতুন প্রজন্মের মধ্যে ছড়িয়ে দিতে সহায়ক হবে।

একই ধরনের খবর

মন্তব্য করুন