দৈনিক স্বতঃকণ্ঠ’র ১৯তম বর্ষপূর্তি উদযাপিত

আবুল কাশেমঃ পাবনা শহরের প্রাণকেন্দ্রে শনিবার ১৩ ফেব্রুয়ারী বহুল প্রচারিত দৈনিক স্বতঃকন্ঠ’র ১৯তম বর্ষপূর্তি উদযাপিত হয়েছে।

শনিবার সকাল থেকে বর্ণাঢ্য র‌্যালি, আলোচনা অনুষ্ঠান, প্রশিক্ষণ কর্মশালা, বিশিষ্ট সাবাদিকদের মধ‍্যে সন্মাননা ক্রেষ্ট বিতরনের মত দীর্ঘ আনুষ্ঠানিকতার মধ‍্যদিয়ে দিনব্যাপী দৈনিক স্বতঃকণ্ঠ এর ১৯তম বর্ষপূর্তি পালিত হয়।

সকালে দেশের বিভিন্ন অঞ্চল থেকে আগত সাংবাদিকগণ পাবনার দৈনিক স্বতঃকণ্ঠ কার্য‍্যালয়ে সমবেত হয়ে আব্দুল হামিদ রোডে এক বর্নাঢ‍্য র‌্যালি করে। র‌্যালটি পাবনা শহরের শিল্প আঙ্গিনায় গিয়ে শেষ হয়।

অনুষ্ঠানে শুভেচ্ছা বক্তব্যে দৈনিক স্বতঃকন্ঠ’র প্রকাশক ও সম্পাদক নুরুদ্দিন শফি কাজল বলেন, সাংবাদিকতা একটি মহান পেশা। এবং এই পেশার মাহাত্ম্য তুলে ধরে বিভিন্ন দিকনির্দেশনামূলক বক্তব্য দেন।

শিল্প আঙ্গিনা হলরুমে দিনব‍্যাপি “সংবাদিকতা এবং তথ‍্য প্রযুক্তি” শীর্ষক এক প্রশিক্ষন কর্মশালা আনুষ্ঠিত হয়। সাংবাদিকদের পেশাগত জ্ঞান ও দক্ষতা বৃদ্ধির জন্য বিশিষ্ট সাংবাদিক জনাব নাহিদ মিথুন “সংবাদিকতা এবং তথ‍্য প্রযুক্তি” শীর্ষক দিনব‍্যাপি এক প্রশিক্ষন প্রদান করেন।

এরপর দৈনিক স্বতঃকণ্ঠের সহকারী সম্পাদক মোঃ মেহেদী হাসান মিশন স্বতঃকন্ঠের সমস্যা ও সম্ভাবনা শীর্ষক বিভিন্ন বিষয়াদি নিয়ে আলোচনা করেন।

অনুষ্ঠানে দেশের বিভিন্ন প্রান্ত থেকে আগত প্রতিনিধিরা সংক্ষিপ্ত আলোচনায় বলেন, দৈনিক স্বতঃকণ্ঠ বিগত ১৮ বছরের মধ‍্যে নানান চড়াই উতরাই মোকাবেলা করে ইতিমধ‍্যইে পাবনা জেলার গন্ডি পেরিয়ে দেশের জেলায় বিস্তার লাভ করতে পেরেছে। এ সময়ে পত্রিকটি সময়পোযোগী ও বস্তুনিষ্ঠ সংবাদ পরিবেশনের মধ‍্য দিয়ে দেশের সকল শ্রেনী পেশার পাঠকের কাছে একটি পাঠকপ্রিয় দৈনিক হিসাবে নিজেকে তুলে ধরতে পেরেছে।

পরে দেশের বিভিন্ন প্রান্ত থেকে আগত সাংবাদিকেবৃন্দের মাঝে সনদপত্র এবং সন্মাননা ক্রেস্ট বিতরন করা হয়।

আগামিতে দৈনিক স্বতঃকণ্ঠ’র এই অগ্রযাত্রা আব‍্যাহত রাখার দৃঢ় প্রত‍্যয় ঘোষনার মধ‍্য দিয়ে আনুষ্ঠানের সমাপ্তি ঘোষনা করা হয়।

একই ধরনের খবর

মন্তব্য করুন