নীলফামারীতে পরিবারের উপর অভিমান করে আত্মহত্যা

নীলফামারী প্রতিনিধিঃ স্ত্রী কন্যার উপরে অভিমান করে, ফাঁসে ঝুলে আত্মহত্যা করেছেন সোহেল ইসলাম (৪৮) নামের একজন ব্যাক্তি।

গতকাল ১১ জুলাই রাত আনুমানিক সাড়ে দশটায় নীলফামারী পৌর এলাকার ১ নং ওয়ার্ডের বাড়াই পাড়ায় এই ঘটনা ঘটে।

প্রকৃতির ডাকে সারা দিতে ঘর থেকে বেড়িয়ে সোহেল ইসলাম দীর্ঘক্ষণ না আসার কারণে, স্ত্রী শাহানাজ পারভিন (৩৮)এবং বড় মেয়ে সম্পা আকতার (১৬) ছেলে সৈকত জামান (১৩) ঘর থেকে ডাকাডাকি করায় সারা না পাওয়ায়,ঘর থেকে বেড়িয়ে বারান্দায় পেয়ারা গাছে ঝুলন্ত অবস্থায় স্বামী সোহেল কে দেখে তরিঘরি করে গাছ হতে নামিয়ে নীলফামারী জেনারেল হাসপাতালে নিয়ে আসলে কর্তব্যরত চিকিৎসক তাকে মৃত ঘোষণা করেন।

সরজমিনে জানা যায়, সোহেল ইসলাম দীর্ঘদিন ধরে মাদকাসক্ত ছিলো।এবং প্রচুর ঋণী হওয়ায়, পরিবারের লোকজন, তার নামীয় সম্পত্তি, স্ত্রী সন্তানের নামে লিখে নেন।

এ বিষয়ে সদর থানার তদন্ত কর্মকর্তা মাহমুদ উন নবী মৃত্যুর বিষয় টি নিশ্চিত করেন এবং লাশ ময়নাতদন্তের জন্য পাঠানো হয়েছে বলে জানান।

আরও পরুনঃ নীলফামারীতে করোনায় আক্রান্ত হলেন মা এবং ছেলে

একই ধরনের খবর

মন্তব্য করুন