পাবনার চাটমোহরে ভয়াবহ অগ্নিকান্ডে ৩৫ ঘর পুড়ে ছাই

চাটমোহর (পাবনা) প্রতিনিধিঃ পাবনার চাটমোহরের ডিবিগ্রাম ইউনিয়নের হোগলবাড়িয়া গ্রামে বৃহস্পতিবার ১৮ই মার্চ দুপুর ২ টার দিকে ভয়াবহ অগ্নিকান্ডের ঘটনা ঘটেছে ও কোটি টাকার ক্ষয় ক্ষতি হয়েছে।

এ ঘটনায় অন্তত ১০ টি বাড়ির ৩৫ ঘর সম্পূর্ণরূপে পুড়ে ছাই হয়ে গেছে।

প্রাথমিক ভাবে ধারণা করা হচ্ছে এ ঘটনায় অন্তত এক কোটি টাকার সম্পদ পুড়ে ছাই হয়েছে।

এলাকাবাসী এবং ক্ষতিগ্রস্থ পরিবার সূত্রে জানা গেছে, বেলা দুইটার দিকে উক্ত গ্রামের নান্টুর বাড়ি থেকে আগুনের সূত্রপাত হয়।

এরপর বাবু, জাইদুল ইসলাম, সাহেদ আলী, আব্দুর রশীদ, সাবেক ইউপি সদস্য বাকিবিল্লাহ, জয়নাল, আসান আলী, আফজাল হোসেন, জামিরুল ইসলামের বাড়িতে আগুন দ্রুত ছড়িয়ে পরে।

এলাকাবাসী আগুন নিয়ন্ত্রনে আনার চেষ্টা করে এবং চাটমোহর ফায়ারসার্ভিসকে বিষয়টি অবগত করে।

ইতিমধ্যে ১০ বাড়ির প্রায় ৩৫ টি ঘর, ঘরে রক্ষিত ফসল, আসবাবপত্র, নগদ টাকা, মূল্যবান প্রয়োজনীয় কাগজপত্র, পোশাকাদিসহ সবকিছু পুড়ে ছাই হয়ে গেছে।

গ্রামটি প্রত্যন্ত এলাকায় হওয়ায় ফায়ার সার্ভিসের কর্মীদের ঘটনাস্থলে পৌছাতে বেশ দেরী হয়ে যাওয়ায় ক্ষয় ক্ষতির পরিমান বেড়ে যায়।

ঘটনাস্থলে পৌছে এলাকাবাসীর সহায়তায় দমকল বাহিনীর কর্মীরা আগুন সম্পূর্ণ রুপে নিয়ন্ত্রনে আনেন।

উক্ত এলাকার ইউপি সদস্য আফসার আলী বিষয়গুলো নিশ্চিত করেছেন।

উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মোঃ সৈকত ইসলাম জানান, আমি তিনটি বাড়িতে আগুন লাগার খবর পেয়েছি। ইউপি চেয়ারম্যানকে ঘটনাস্থলে যেতে বলেছি।

ক্ষতিগ্রস্থ পরিবার গুলোকে আপাতত শুকনো খাবার পৌছে দেয়া হবে।

তাদের বাড়ি ঘর নির্মানে সরকারের পক্ষ থেকে সাধ্যমতো প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহন করা হবে।

বিকেল পৌনে চারটায় ফায়ার সার্ভিস সূত্র আগুন লাগার বিষয়টি নিশ্চিত করে জানান, কিছু সময় পূর্বে আগুন সম্পূর্ণ নিয়ন্ত্রনে আনতে সক্ষম হয়েছি। ক্ষয় ক্ষতির পরিমান নিরুপনের চেষ্টা করছি। এখনি বিস্তারিত বলা সম্ভব হচ্ছে না।

চারটার দিকে ইউপি চেয়ারম্যান নবীর উদ্দিন মোল্লা জানান, আমি ঘটনাস্থলে যাচ্ছি। বিস্তারিত পরে জানাতে পারবো।

একই ধরনের খবর

মন্তব্য করুন