পাবনার সাঁথিয়ার বোরো ধানের বাম্পার ফলন -কৃষকের মুখে হাসি

সাঁথিয়া(পাবনা)প্রতিনিধিঃ পাবনা জেলার কয়েকটি উপজেলায় চলতি বোরো মৌসুমে তীব্র তাপতহে ধান নষ্ট হলেও করোনাকালীন সময়ে সাঁথিয়া উপজেলায় ধানের বাম্পার ফলন হয়েছে।

নির্ধারিত সময়ে ধানের বীজ বপন ও জমিতে ধান রোপন করায় তীব্র তাপতাহের পরও ব্যাপক ফলনের আশা করছে উপজেলা কৃষি অফিস। চলতি বোরো মৌসুমে সাঁথিয়ায় ৫ হাজার ৭ শত ২৫ হেক্টর জমিতে ধানের আবাদ করা হয়। যা লক্ষ্যমাত্রার চেয়ে বেশি।

এ বছর কৃষকদের মাঝে কৃষি অফিস নতুন জাতের বিনা ৮৯, ৮৮, ৮১, ৭৪ ও হাইব্রীড অগ্রণী ধানের বীজ বিতরণ করে। হাইব্রীড অগ্রণী ধান প্রায় ১ হাজার ৫শত হেক্টর জমিতে আবাদ করা হয়। বিনা ৮৯ ধান চাষে কৃষকরা ব্যাপক সাফল্য পেয়েছে। এ ধান বিঘায় ৪৫ মন ফলনে উৎপাদন হয়।

এদিকে উপজেলার মাঠে মাঠে রুপালী ও সোনালী রংয়ে ধানের শীষ বাতাসে দোল খাচ্ছে। উপজেলার চার ভাগের এক ভাগ কৃষক নিজেদের জমিতে আবাদকৃত বোরো ধান কাটা শুরু করেছে। ধানের ফলনে কৃষকদের মুখে ফুটেছে হাসি।

কৃষক আব্দুল বারেক, আবু ইসহাক, সোবাহানসহ অনেকেই জানান, এ বছর তাদের জমিতে ভালো ধান উৎপাদন হয়েছে। কোন প্রাকৃতিক দূর্যোগ না আসায় অতি সহজে ফসল ঘরে তোলা সম্ভব হবে।

সাঁথিয়া উপজেলার কৃষি অফিসার কৃষিবিদ সঞ্জীব কুমার গোস্বামী জানান, উপজেলায় এবার বোরো ধানের ব্যাপক আবাদ হয়েছে। জমিতে ধানের বাম্পার ফলন লক্ষ্য করা যাচ্ছে। এবং কৃষকরা ইতোমধ্যে ধান কাটতে শুরু করেছে। তবে প্রায় ১০/১২ হেক্টর জমির ধান পানির অভাবে ও তাপদাহে নষ্ট হবার সম্ভাবনা রয়েছে।

আরও পড়ুনঃ তাড়াশে ইরি বোরো-ধানের বাম্পার ফলন-দামে খুশি কৃষক

একই ধরনের খবর

মন্তব্য করুন