পাবনার সাঁথিয়ায় একদিনে তিন গৃহবধূর আত্মহত্যা

সাঁথিয়া (পাবনা) প্রতিনিধিঃ পাবনার সাঁথিয়ায় একই দিনে তিন গৃহবধূর আত্মহত্যা। লাশ উদ্ধারসহ থানায় ইউডি মামলা।

থানা সুত্রে জানা যায়, গত রবিবার ২ মে রাত ৮ থেকে সোমবার সকাল পর্যন্ত বিষ পান ও গলায় ফাঁস নিয়ে আত্মহত্যা করে তারা।

আত্মহত্যাকারীরা হলো সাঁথিয়াউপজেলার সোনাতলা মিস্ত্রী পাড়া গ্রামের আব্দুস কদ্দুসের স্ত্রী নাজমা খাতুন(৫২) সবার অজান্তে সোমবার(৩এপ্রিল) সকাল সাড়ে ৬টার দিকে ঘরের আড়ায় ওড়না জড়িয়ে গলায় ফাস লাগিয়ে আত্মহত্যা করে।

উপজেলার ভবাণীপুর গ্রামের আব্দুর রশিদের স্ত্রী রেনু খাতুন(৪০) রবিবার(২ এপ্রিল) রাতে ঘরের আড়ায় ওড়না জড়িয়ে গলায় ফাস লাগিয়ে আত্মহত্যা করেছে।

উপজেলার মহিষাকোলা গ্রামের বাচ্চুর স্ত্রী খালেদা খাতুন(৩৮) স্বামী দ্বিতীয় বিয়ে করায় অভিমান করে গত ১৭ এপ্রিল বিষপান করে গুরুতর অসুস্থ্য হয়ে বেড়া হাসাাতালে ভর্তি হয়। অবস্থার অবন্নতি হলে বগুড়া মেডিক্যাল হাসপাতালে ভতি করা হয়। সেখান থেকে সুস্থ্য হয়ে গত ২৯ এপ্রিল স্বামীর বাড়িতে আসে। গত সোমবার (৩ এপ্রিল) সকাল ৯ টার দিকে খালেদা খাতুন মারা যায়।

পারিবারিক সমস্যায় তিন গৃহবধূর আত্মহত্যা হয়েছে বলে জানা গেছে। লাশ ময়না তদন্তের জন্য পাবনা মর্গে প্রেরণ করা হয়েছে।

এবং সাঁথিয়া থানার অফিসার ইনচার্জ আসিফ মোহাম্মদ সিদ্দিকুল ইসলাম বলেন, লাশ উদ্ধার করে থানায় ইউডি মামলা হয়েছে।

আরও পড়ুনঃ ঈশ্বরদীতে গৃহবধুর গলাকাটা লাশ উদ্ধার

একই ধরনের খবর

মন্তব্য করুন