রেড ক্রিসেন্ট সোসাইটির অক্সিজেন সিলিন্ডার ও কনসেন্ট্রেটর বিতরণ

প্রেস বিজ্ঞপ্তিঃ ৫ জুলাই, ২০২১। দেশব্যাপি করোনা প্রতিরোধ কার্যক্রমকে গতিশীল করতে বাংলাদেশ রেড ক্রিসেন্ট সোসাইটি দেশব্যাপি ৬৪০ টি অক্সিজেন সিলিন্ডার ও ২০০ টি বিশেষ অক্সিজেন কনসেন্ট্রেটর সোসাইটির ৬৪ জেলা ইউনিট, ৪ টি সিটি ইউনিট, ৫৬ টি এমসিএইচ ও ৫ টি জেনারেল হাসপাতালে বিতরণ করেছে।

অস্ট্রেলিয়ান রেড ক্রস এর আর্থায়নে ও আইএফআরসির সহায়তায় এসব স্বাস্থ্য সুরক্ষা সরঞ্জাম দিয়েছে। সোসাইটির চেয়ারম্যান ও সাবেক সংসদ সদস্য মেজর জেনারেল এটিএম আবদুল ওয়াহ্হাব আজ সোমবার সোসাইটির সদর দপ্তরের প্রশিক্ষন কক্ষে এক অনুষ্ঠানে এসব স্বাস্থ্য সুরক্ষা সরঞ্জাম আনুষ্ঠানিকভাবে হস্তান্তর করেন। করোনা মহামারির কারনে সোসাইটির ৬৮ জেলা ইউনিট প্রতিনিধিগণ ভিডিও কনফারেন্সের মাধ্যমে এ অনুষ্ঠানে যুক্ত ছিলেন।

অনুষ্ঠানে সোসাইটির ভাইস চেয়ারম্যান মোঃ নুর-উর-রহমান, ট্রেজারার এম এ সালাম, মহাসচিব মোঃ ফিরোজ সালাহউদ্দিন, উপ-মহাসচিব মোঃ রফিকুল ইসলাম, আইএফআরসির হেড অব ডেলিগেশন সঞ্জীব কুমার কাফলে, স্বাস্থ্য বিভাগের পরিচালক জয়নাল আবেদীন, যুব ও স্বেচ্ছাসেবক এবং ডিজাস্টার রেসপন্স বিভাগের পরিচালক ইমাম জাফর সিকদার সহ বিডিআরসিএস ও আইএফআরসির প্রতিনিধিগণ উপস্থিত ছিলেন।

এ উপলক্ষ্যে সোসাাইটির চেয়ারম্যান বলেন, বাংলাদেশ রেড ক্রিসেন্ট সোসাইটি করোনাকালিন স্বাস্থ্যগত মহাবিপর্যয়কে সাহসিকতার সাথে মোকাবেলা করছে । করোনা মহামারি মোকাবেলায় অস্ট্রেলিয়ান রেড ক্রস ও আইএফআরসির সহায়তায় প্রাপ্ত এসব অক্সিজেন সিলিন্ডার ও বিশেষ অক্সিজেন কন্সেন্ট্রেটর দেশব্যাপি সোসাইটির জেলা ইউনিটগুলোতে জরুরী সেবা দিতে সর্বদা প্রস্তুত থাকবে।

সোসাইটির মহাসচিব মোঃ ফিরোজ সালাহউদ্দিন বলেন, রেড ক্রিসেন্ট সোসাইটি করোনা মোকাবেলায় নির্ভীক সৈনিকের মতো নিরলস কাজ করে যাচ্ছে। করোনা প্রতিরোধ কার্যক্রম এর অংশ হিসেবে জরুরি সেবা প্রদানের জন্য ৫ টি করে অক্সিজেন সিলিন্ডার ও ২ টি করে বিশেষ অক্সিজেন কনসেন্ট্রেটর সোসাইটির প্রতিটি জেলা ইউনিটে প্রস্তুত থাকবে।

এছড়া সারা দেশে সোসাইটির ৫৬ এমসিএইচ সেন্টার এ ৩ টি করে অক্সিজেন সিলিন্ডার থাকবে জরুরি সেবা প্রদানের জন্য। এছড়াও তিনি সকল জেলা ইউনিটকে স্থাণীয় সম্পদকে উপযোগী করে মাসবিক সেবায় নিয়োজিত করার প্রতি গুরুত্ব আরোপ করেন।

সোসাইটির ম্যানেজিং বোর্ড এর সদস্য বিশিষ্ট সাংবাদিক জনাব মঞ্জুরুল ইসলাম বলেন, রেড ক্রিসেন্ট সোসাইটি করোনা মোকাবেলায় শুরু থেকেই যেসব মানবিক সহায়তা দিয়ে আসছে তার পাশাপশি আমাদের দায়িত্ব স্বাস্থ্যবিধি কঠোরভাবে মেনে চলা।

সেই সাথে সমাজে যারা বিত্তবান আছেন তাদের প্রতি অনুরোধ করেন তারা যেন রেড ক্রিসেন্টের সাথে সমন্বয় করে দিতে পারেন যাতে করে স্বাস্থ্যবিধি নিশ্চিত করা যায়।

এ উপলক্ষ্যে সোসাইটির ডিজাস্টার রেসপন্স বিভাগের পরিচালক জনাব ইমাম জাফর শিকদার জানান যে, ইতিমধ্যে সীমান্তবর্তী ঝুঁকিপূণ ১৪ জেলায় বিনামূল্যে ১৪টি এ্যাম্বুলেন্স সেবা দিচ্ছে রেড ক্রিসেন্ট সোসাইটি এ্যাম্বুলেন্স সেবার পাশাপাশি বাংলাদেশ রেড ক্রিসেন্ট সোসাইটি কোভিড-১৯ সংক্রমণের হার বৃদ্ধি পাওয়া ১৩ টি জেলায় প্রতিদিন ৩০০ প্যাকেট রান্না করা খাবার বিতরন চলছে।

আরও পড়ুনঃ সিরাজগঞ্জের উল্লাপাড়া ও সলঙ্গায় ইয়াবাসহ ২ জন মাদক ব্যবসায়ী গ্রেফতার

একই ধরনের খবর

মন্তব্য করুন